April 12, 2024, 12:12 pm
শিরোনাম :
রোজাদার ব্যাক্তিদের পাঁচ বছর ধরে ইফতার সামগ্রী বিতরণ করে আসছে জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সাধারণ সম্পাদক পিরোজপুরের সুমন সিকদার পিরোজপুরে আজমল হুদা নিঝুম এর ব্যাক্তিগত সহায়তায় হিলফুল ফুজুল রমজান মাস ব্যাপী টানা ইফতার বিতরণ রায়পুর চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ভিজিএফের চাউল আত্মসাতের অভিযোগ উঠেছে প্রশাসনকে পিটিয়ে ফাঁড়ির থেকে ছেলেকে নিয়ে গেলেন এমপি বগুড়া সদরের মাটিডালীতে যুব ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ পিরোজপুরে পুলিশ পদে চাকুরি পেয়েছে ২৮ জন ঢাকা থেকে অপহৃত শিশু পিরোজপুরে উদ্ধার নড়াইলে এসএসটিএসের ইফতার সামগ্রী বিতরণ দিনাজপুর বিরামপুরে গণহত্যা দিবস’র আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত বিরামপুরে ট্রান্সফরমারসহ চোর আটক

লক্ষ্মীপুর আদালতের মাদক মামলায় ৫ বছরের সাজা

সোহেল হোসেন লক্ষ্মীপুর জেলা প্রতিনিধি।
  • সময়: Thursday, January 11, 2024,
  • 25 Time View

রিপোর্টারঃ সোহেল হোসেন,লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি-লক্ষ্মীপুরে ইয়াবা ট্যাবলেট রাখার দায়ে খোরশেদ আলম এক মাদক ব্যবসায়ীর ৫ পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ডের রায় দিয়েছে আদালত।একই সাথে তার ১০দশ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ৬ছয় মাসের কারাদণ্ডের রায় দেওয়া হয়েছে।বৃহস্পতিবার ১১ জানুয়ারি-২৪ইং দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচার মো.রহিবুল ইসলাম এই রায় দেন। একই মামলায় জসিম নামে এক আসামিকে বেকসুর খালাস দিয়েছে আদালত।রায়ের সময় দণ্ডপ্রাপ্ত খোরশেদ আলম উপস্থিত ছিলেন না,জামিন নিয়ে পলাতক রয়েছেন তিনি।অপর আসামি জসিম আদালতে উপস্থিত ছিল।

খোরশেদ চাঁদপুর হাজীগঞ্জ পৌরসভার বান্ধুনীমুড়া গ্রামের আবু তাহেরের ছেলে।জসিম রামগঞ্জ পৌরসভার কলছমা গ্রামের নুরু মিয়ার ছেলে।

লক্ষ্মীপুর জজ আদালতের পাবলিক প্রসিকিউটর(পিপি) মো.জসিম উদ্দিন রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।আদালত সূত্রে জানা গেছে,গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ২০১৮ইং সালের ২১ জুন রাতে পৌরসভার কলছমা গ্রামের মান্দার বাড়িতে অভিযান চালায় রামগঞ্জ থানা পুলিশ।এই সময় মাদকদ্রব্য ক্রয়-বিক্রয়কালে খোরশেদ আলম ও তার ছোট ভাই সোহেল আলমকে আটক করা হয়।তাদের দুইজনের কাছ থেকে ১১০ পিছ ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করে পুলিশ।ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায় জসিম নামে আরেকজন৷

এই ঘটনায় রামগঞ্জ থানা পুলিশের উপপরিদর্শক (এসআই)মুহাম্মদ কাওসারুজ্জামান বাদি হয়ে আটককৃত খোরশেদ,মোঃ সোহেল ও পলাতক জসিমের নামে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেন।

মামলাটি তদন্ত করেন থানার উপ পরিদর্শক(এসআই) পংকজ কুমার সাহা।তিন আসামিকে অভিযুক্ত করে ২০১৮ইং সালের ২৭ আগষ্ট তিনি আদালতে প্রতিবেদন দেন। পরে মামলায় দ্বিতীয় আসামি সোহেল আলম মারা গেলে তাকে মামলা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়।

আদালত সাক্ষ্য প্রমাণের ভিত্তিতে মামলার প্রধান আসামি খোরশেদ আলমের সাজা এবং অপর আসামি জসিমকে খালাস দিয়েছেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরো খরব
এই ওয়েবসাইটের কোন লেখা,ছবি,অডিও,ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি। © All rights reserved © 2023
ডিজাইন - রায়তা-হোস্ট সহযোগিতায় : SmartiTHost
durantotv24